আজ ৬ই আষাঢ়, ১৪২৮ বঙ্গাব্দ, ২০শে জুন, ২০২১ ইং

দুই বেসরকারি বিশ্ববিদ্যালয়কে ১০ লাখ টাকা জরিমানা

বাংলাদেশ বার কাউন্সিল এবং বিশ্ববিদ্যালয় মঞ্জুরী কমিশনের (ইউজিসি) নির্দেশনা সত্ত্বেও বেসরকারি বিশ্ববিদ্যালয়ের আইন বিভাগে সেমিস্টার প্রতি ৫০ জনের বেশি শিক্ষার্থী ভর্তি করায় দুটি বিশ্ববিদ্যালয়কে ১০ লাখ টাকা করে জারিমানা প্রদানের নির্দেশ দিয়েছেন আপিল বিভাগ। বারডেম হাসপাতালে নিয়মিত লিভার ট্রান্সপ্লান্ট ইউনিটে এই জরিমানার অর্থ প্রদান করতে নির্দেশ দিয়েছেন আদালত।

আজ বুধবার প্রধান বিচারপতি সৈয়দ মাহমুদ হোসেনের নেতৃত্বাধীন আপিল বিভাগ এ আদেশ দেন। বিশ্ববিদ্যালয় দুটি হলো- স্ট্যামফোর্ড ইউনিভার্সিটি ও ঢাকা ইন্টারন্যাশনাল ইউনিভার্সিটি।

এ ছাড়া আইনজীবী হিসেবে অন্তর্ভূক্তির জন্য আসন্ন বাংলাদেশ বার কাউন্সিল পরীক্ষায় স্ট্যামফোর্ড ইউনিভার্সিটি ও ঢাকা ইন্টারন্যাশনাল ইউনিভার্সিটির আইন বিভাগের শিক্ষার্থীকে রেজিস্ট্রেশন কার্ড ও ফরম পূরণের নির্দেশ দেওয়া হাইকোর্টের আদেশ বহাল রেখেছেন আপিল বিভাগ। এর ফলে আসন্ন বার কাউন্সিল পরীক্ষায় এসব শিক্ষার্থীদের পরীক্ষা দেওয়ার সুযোগ দিতেই হচ্ছে বলে জানিয়েছেন আইনজীবীরা।

আদালতে বার কাউন্সিলের পক্ষে শুনানি করেন অ্যাডভোকেট মশিউজ্জামান। অন্যদিকে স্ট্যামফোর্ড ইউনিভার্সিটির পক্ষে সিনিয়র অ্যাডভোকেট এএম আমিন উদ্দিন এবং ঢাকা ইন্টারন্যাশনাল ইউনিভার্সিটির পক্ষে অ্যাডভোকেট রোকন উদ্দিন মাহমুদ শুনানি করেন। তাদের সঙ্গে ছিলেন অ্যাডভোকেট এবিএম শাহজাহান আকন্দ মাসুম, নাহিয়ান ইবনে সুবহান, মো. মশিউর রহমান রিয়াদ, সাইফুল আলম, মেহেদী হাসান জুয়েল প্রমুখ।

এর আগে আইনজীবী হিসেবে অন্তর্ভূক্তির জন্য আসন্ন বাংলাদেশ বার কাউন্সিল পরীক্ষায় নিয়ম বহির্ভূতভাবে শিক্ষার্থী ভর্তি করানোর অভিযোগে দেশের প্রায় ১১টি বেসরকারি বিশ্ববিদ্যালয়ের আইন বিভাগের শিক্ষার্থীদের রেজিস্ট্রেশন কার্ড না দিতে সিদ্ধান্ত জানায় বার কাউন্সিল। পরে সে সিদ্ধান্তের বিরুদ্ধে হাইকোর্টে ভুক্তভোগী প্রায় ২ হাজার শিক্ষার্থী পৃথক পৃথক রিট দায়ের করেন। সেসব রিটের শুনানি নিয়ে শিক্ষার্থীদের রেজিস্ট্রেশন কার্ড দেওয়ার সুযোগ দেওয়ার নির্দেশ দেন হাইকোর্ট।

এরপর হাইকোর্টের আদেশ স্থগিত চেয়ে সুপ্রিম কোর্টের চেম্বার আদালতে বার কাউন্সিল থেকে আবেদন করা হয়। ওই আবেদন মঞ্জুর করে চেম্বার আদালত হাইকোর্টের আদেশ স্থগিত করেন এবং আবেদনগুলোর ওপর শুনানির জন্য আপিল বিভাগের পূর্ণাঙ্গ বেঞ্চে শুনানির দিন নির্ধারণ করে দেন। যার ধারাবাহিকতায় মামলাগুলো আজ বুধবার আপিল বিভাগে শুনানি হয়।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

     এই বিভাগের আরও খবর...