আজ ৭ই জ্যৈষ্ঠ, ১৪২৭ বঙ্গাব্দ, ২১শে মে, ২০২০ ইং

নাগালের মধ্যে দাম নিয়ে ব্যাপক সাড়া ফেলেছে প্রিমো আরসিক্স

গণ উত্তরণ ডেস্ক : ডুয়াল ক্যামেরার শক্তিশালী ব্যাটারি সমৃদ্ধ নচ ডিসপ্লের নতুন স্মার্টফোন বাজারে ছেড়েছে প্রযুক্তিপণ্যের দেশীয় প্রতিষ্ঠান ওয়ালটন। যার মডেল ‘প্রিমো আরসিক্স’। ক্রিমসন ব্ল্যাক, ডার্ক ব্লু এবং টোয়াইলাইট ব্লু এই তিনটি আকর্ষণীয় রঙে ফোনটি দেশের সব ওয়ালটন প্লাজা, মোবাইল ব্র্যান্ড ও রিটেইল আউটলেট এবং অনলাইনের ই-প্লাজায় পাওয়া যাচ্ছে। ডিভাইসটির দাম মাত্র ৯,৫৯৯ টাকা।

ওয়ালটন সেল্যুলার ফোন বিক্রয় বিভাগের প্রধান আসিফুর রহমান খান জানান, আকর্ষণীয় ডিজাইন ও ফিচারে সাজানো ‘প্রিমো আরসিক্স’ ফোনটি বাজারে আসার আগেই প্রি-অর্ডার বা আগাম ফরমাশ নেয়া হয়েছিল। প্রি-অর্ডারে ক্রেতাদের কাছ থেকে ব্যাপক সাড়া পাওয়া গেছে। এবার সব ক্রেতার জন্যই ফোন বাজারে উন্মুক্ত করা হয়েছে।

জানা গেছে, নতুন এই ফোনটিতে ব্যবহৃত হয়েছে ৬.১ ইঞ্চির ১৯:৯ রেশিওর ইউ-নচ ডিসপ্লে। এইচডি প্লাস পর্দার রেজ্যুলেশন ১৫৬০ বাই ৭২০ পিক্সেল। ক্যাপাসিটিভ টাচ স্ক্রিনের আইপিএস প্রযুক্তির স্মার্টফোনটিতে রয়েছে ধূলা ও আঁচররোধী ২.৫ডি কার্ভড গ্লাস।

ফোনটি অ্যান্ড্রয়েড ৯.০ পাই অপারেটিং সিস্টেমে পরিচালিত। এতে ব্যবহৃত হয়েছে ১.৬ গিগাহার্জ গতির এআরএম কর্টেক্স-এ৫৫ অক্টাকোর প্রসেসর। সঙ্গে রয়েছে ৩ জিবি ডিডিআর৪ র্যাম এবং পাওয়ার ভিআর জিই৮৩২২ গ্রাফিক্স। যা নিশ্চিত করছে ডিভাইসটির দারুণ পারফর্মেন্স ও গতি। ফলে বিভিন্ন অ্যাপস ব্যবহার, ইন্টারনেট ব্রাউজিং, থ্রিডি গেমিং এবং দ্রুত ভিডিও লোড ও ল্যাগ-ফ্রি ভিডিও স্ট্রিমিং সুবিধা পাওয়া যাবে। ফোনটির অভ্যন্তরীণ মেমোরি ৩২ গিগাবাইটের। এটি ১২৮ জিবি পর্যন্ত মেমোরি কার্ড সাপোর্ট করবে।

ফোনটির পেছনে রয়েছে এলইডি ফ্ল্যাশযুক্ত পিডিএএফ প্রযুক্তির এফ ২.০ অ্যাপারচারের বিএসআই ১৩ এবং ২ মেগাপিক্সেলের ডুয়াল ক্যামেরা। ৫পি লেন্স সমৃদ্ধ ১৩ মেগাপিক্সেলের প্রধান ক্যামেরা দেবে উজ্জ্বল ছবি। আর ২ মেগাপিক্সেলের সেকেন্ডারি ক্যামেরা নিশ্চিত করবে ডেফথ-অব-ফিল্ড ইফেক্ট। ফলে ছবিতে প্রোফেশনাল বোকেহ ইফেক্ট পাওয়া যাবে। ব্যাকগ্রাউন্ড ব্লার করে ছবি তোলা সম্ভব হবে।

আকর্ষণীয় সেলফির জন্য এই ফোনের সামনে রয়েছে পিডিএএফ প্রযুক্তির ৪পি লেন্স সমৃদ্ধ ৮ মেগাপিক্সেল ক্যামেরা। ক্যামেরায় নরমাল এবং প্রো মোড ছাড়াও অন্যান্য ফিচারের মধ্যে রয়েছে নাইট মোড, ফিল্টার মোড, ফেস কিউট, এইচডিআর, প্যানোরমা, টাইম ল্যাপস, ফেস ডিকেটশন, ডিজিটাল জুম, সেলফ টাইমার, অটো ফোকাস, টাচ ফোকাস, টাচ শট, ডিসপ্লে ফেসিয়াল ইনর্ফমেশন, কিউআর কোড, মিররড সেলফি ইত্যাদি।

দুর্দান্ত পাওয়ার ব্যাকআপের জন্য স্মার্টফোনটিতে ব্যবহৃত হয়েছে ৪০০০ মিলিঅ্যাম্পিয়ারের লিথিয়াম পলিমার ব্যাটারি। কানেক্টিভিটি হিসেবে আছে ওয়াই-ফাই, ব্লুটুথ ভার্সন ৪.২, মাইক্রো ইউএসবি ভার্সন ২, ওয়ারলেস ডিসপ্লে, ল্যান হটস্পট, ওটিএ এবং ওটিজি। হ্যান্ডসেটটির অন্যান্য ফিচারের মধ্যে রয়েছে ডুয়াল সিমে ফোরজি নেটওয়ার্ক সাপোর্ট, রেকর্ডিং সুবিধাসহ এফএম রেডিও, ফুল এইচডি ভিডিও প্লে-ব্যাক, ফিঙ্গারপ্রিন্ট সেন্সর, ফেস আনলক, স্টেপ ডিকেক্টর ইত্যাদি।

দেশে তৈরি এই স্মার্টফোনে রয়েছে বিশেষ রিপ্লেসমেন্ট সুবিধা। স্মার্টফোন কেনার ৩০ দিনের মধ্যে ত্রুটি ধরা পড়লে ফোনটি পাল্টে ক্রেতাকে নতুন আরেকটি ফোন দেয়া হবে। এছাড়াও, ১০১ দিনের মধ্যে প্রায়োরিটি বেসিসে ৪৮ ঘন্টার মধ্যে ক্রেতা বিক্রয়োত্তর সেবা পাবেন। তাছাড়া, স্মার্টফোনে এক বছরের এবং ব্যাটারি ও চার্জারে ছয় মাসের বিক্রয়োত্তর সেবা তো থাকছেই।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

     এই বিভাগের আরও খবর...