আজ ৩রা আশ্বিন, ১৪২৮ বঙ্গাব্দ, ১৮ই সেপ্টেম্বর, ২০২১ ইং

পলাশবাড়ীতে টাকার অভাবে বয়স্কভাতা হতে বঞ্চিত বৃদ্ধ জামাল

হাত পেতে অন্যের নিকট ভিক্ষা করতে হয় পেটের দায়ে ভিক্ষুক জামাল উদ্দিন।গাইবান্ধা জেলার কিশোগাড়ী ইউনিয়নের দিঘলকান্দি গ্রামের বন্যা নিয়ন্ত্রন বাধের পাশে ৫ শতক জমির উপরে মৃত আব্দুস সাত্তারের পুত্র জামাল উদ্দিন (৭২) ২ কন্যা এ ছেলে সন্তান রয়েছে। বড় মেয়ে কে বিয়ে দিয়েছেন স্ত্রী, ছোট মেয়ে ও ছেলেকে নিয়ে দিঘলকান্দি বেলেরঘাট এলাকার তার ২৪ বছরের বসবাস। রাস্তা ঘাটে কাজ কর্ম করতো দিন আনা দিন খাওয়া শ্রমিক হিসাবে কাজ করতেন। বয়সের ভারে আর শ্রম দিতে পারেন না দীর্ঘদিন হলো তিনি বয়স্কভাতা জন্য চেয়ারম্যান মেম্বার ও স্থানীয় নেতৃবৃন্দের দ্বারে দ্বারে গিয়েও কোন প্রকার সহায়তা তো পাননি বরং তারা তার কাছে বয়স্কভাতার সুবিধা পেতে টাকা চেয়েছেন। এ টাকা দিতে না পাড়ায় বয়স হলেও আজো মেলেনি তার কপালে বয়স্কভাতা।

বয়স হয়ে পড়ায় কে আর কাজেও নেয় না বাধ্য হয়ে পরিবার চালাতে নিজের ওষুধপত্র কিনতে ছোট মেয়ের বিয়ের খরচের জন্য জামাল উদ্দিন (৭২) এখন পলাশবাড়ী পৌর শহরে অন্যের নিকট হাত পেতে ভিক্ষাবৃত্তি করে মানববেতর জীবন যাপন করছেন।

সে বলে যদি আমার একটা বয়স্কভাতা হতো আমার ও আমার পরিবারের জন্য একটু হলে সুবিধা হতো। কিছু না হোক অনাহারে অদ্যাহারে চলতে হতো না। আপনাদের সহায়তায় যদি কেউ আমার অসহায় পরিবারের পাশে দাড়ায় তাহলে আমারা খেয়ে পড়ে বেচে থাকতাম। বৃদ্ধা জামাল উদ্দিন আরো বলেন অন্যের নিকট ভিক্ষা চাওয়া সেটা যে কত কষ্টের কেউ যদি অনুধাবন করতে পারে তাহলে আমার দুংখ বুঝতে পারবে।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

     এই বিভাগের আরও খবর...