আজ ১৫ই মাঘ, ১৪২৯ বঙ্গাব্দ, ২৯শে জানুয়ারি, ২০২৩ ইং

চিকিৎসা নিতে গিয়ে পল্লী চিকিৎসক কর্তৃক গৃহবধূ ধর্ষিত

গোবিন্দগঞ্জ প্রতিনিধি: গাইবান্ধার গোবিন্দগঞ্জ উপজেলার বালুয়া বাজারে চিকিৎসকের নিকট চিকিৎসা করতে গিয়ে পল্লী চিকিৎসক কর্তৃক ধর্ষণের শিকার হয়েছেন এক নারী।

চেম্বারে নারী রোগীকে জোরপূর্বক ধর্ষণের অভিযোগে পুলিশ সাহারুল ইসলাম (৩৩) নামের ওই পল্লী চিকিৎসককে আটক করেছে। আটককৃত সাহারুল ইসলাম উপজেলার দরবস্ত ইউনিয়নের বিশ্বনাথপুর গ্রামের হাসেন আলীর ছেলে।

গোবিন্দগঞ্জ থানার মামলা সূত্রে জানাগেছে, বৃহস্পতিবার সন্ধার দিকে জেলার গোবিন্দগঞ্জ উপজেলার দরবস্ত ইউনিয়নের বিশ্বনাথপুর গ্রামের এক গৃহবধূ (৩০) অসুস্থ
হয়ে ওই চিকিৎসকের কাছে চিকিৎসা নিতে গেলে চিকিৎসা দেয়ার নামে ওই চিকিৎসক চেম্বারের দরজা-জানালা বন্ধ করে মুখ চেপে ধরে ওই গৃহবধূকে ধর্ষণ করে।

চেম্বার থেকে বেড়িয়ে ওই গৃহবধূ ঘটনাটি পরিবারসহ স্থানীয়দের জানালে শত-শত মানুষ ওই চিকিৎসকের চেম্বার ঘিরে বিচার দাবী করে।

স্থানীয় মানুষের অভিযোগ,ইতোপূর্বেও ওই পল্লী চিকিৎসকের বিরুদ্ধে এধরণের একাধিক অভিযোগ পাওয়া গেছে এবং স্থানীয়ভাবে শালিসের মাধ্যমে তা মিমাংসা করা হয়েছে।

এ খবর পেয়ে গোবিন্দগঞ্জ থানা পুলিশ ঘটনাস্থলে গিয়ে ওই পল্লী চিকিৎসককে আটক করে থানায় নিয়ে যায়। এঘটনায় রাতেই গোবিন্দগঞ্জ থানার মামলা দায়ের হয়েছে।

গোবিন্দগঞ্জ থানার ডিউটি অফিসার উপ-পরিদর্শক অনিমেষ বিষয়টি নিশ্চিত করে জানান, শুক্রবার যে কোন সময় আটককৃত পল্লী চিকিৎসক সাহারুল ইসলাকে আদালতে তোলা হবে।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

     এই বিভাগের আরও খবর...